সময়ের অদৃষ্ট কাল বিলাই চাটে বাঘের গাল: সাবেক ছাত্রলীগ নেতাদের কটাক্ষ করে সিদ্দিকী নাজমুলের স্ট্যাটাস ভাইরাল

বাংলাদেশের রাজৈতিক ইতিহাসে একটা সময় ছাত্ররাজনীতির একটা দাপট এবং সুনাম ছিলো সব থেকে বেশি। বাংলাদেশের সব ভালো ভালো অর্জনের সাক্ষি হয়ে এখনো ইতিহাসে রয়েছে বাংলাদেশের ছাত্র রাজনিতীর নাম। তবে সম্প্রতি ছাত্র রাজনীতীর সংঞ্জা পাল্টে গেছে।

এখনকার ছাত্র রাজনিতী মানেই যেন প্রতিহিংসা আর একে অন্যের মুখোমুখি অবস্থান নেয়া। বিশেষ করে ক্ষমতাটাকেই যেন এখন সবাই একটি চাহিদার বস্তু হিসেবে গ্রহন করেছে। ক্ষমতা না থাকলে যেন আর কিছুই নেই। আর বর্তমানে বাংলাদেশের যারা সাবেক

ছাত্র নেতা ছিলো তারা বর্তমনে রয়েছে বেশ দুঃখ দুর্দশার মধ্যে। বর্তমান ছাত্রানেতাদের সঙ্গে যেন তারা কিছুতেই পেরে উঠছে না। এবার এই সব বিষয় নিয়ে বেশ বিশ্লেষনত্মক স্ট্যাটাস দিয়েছেন বাংলাদেশের একজন সাবেক ছাত্র নেতা সিদ্দিকী নাজমুল আলম।পাঠকদের উদ্দশ্যে তা তুলে ধরা হলো হুবহু :-

তিনি লিখেছেন, \”ইস্ত্রি করা চকচকে কাপড় পরে সমাজের বিভিন্ন জায়গায় ঘুরে বেড়ায় বর্তমান পলিটিশিয়ানদের সাথে তাল মিলিয়ে; সচিব-ডিজিদের স্যার ডাকতে পারে না কেউ কেউ; কাজ করার আগেই পার্সেন্টেইজ দিতে পারে না অনেকেই; বাসায় গিয়ে বউয়ের লগে গল্প করে।

আজকেও গণভবনে নেত্রীর সাথে দেখা করে আসলাম। অথচ পাস যে ব্যক্তি দেয় সে কিন্তু ফোনও ধরেনি।
কোনভাবে টিভিতে নিজের চেহারাটা দেখানোর যুদ্ধে নব্যদের সাথে ধস্তা ধস্তিতে পেরে উঠে না অনেকেই। সর্বস্ব বিক্রি করে হলেও ভালো থাকার অভিনয় করতে হয়।

অনুপ্রবেশকারীদের সাথে বড় নেতাদের উপঢৌকন দেওয়ার প্রতিযোগিতায় না পেরে উঠার কারণে কোন মন্ত্রীর বা নেতার আস্থাভাজন হয়ে উঠতে পারে না। বর্তমানদের ব্যাপারেও নিজস্ব মতামত দিতে পারে না, যদি কেউ মাইন্ড করে।

উপরের মানুষগুলোর নাম সাবেক ছাত্রনেতা!

তবে বাটপার একটা শ্রেণী আছে যারা শুধু ড্রইংরুম পলিটিক্স করে মিথ্যা ইতিহাসের আশ্রয় নিয়ে বাগিয়ে নিয়েছে অনেক কিছু। ২০০৮ সালের পরে আসলে সাবেক ছাত্রনেতার সংজ্ঞাটিও বদলে দিয়েছে। অনেকে কোথাকার কোন \’বালেশ্বর\’ সেও সাবেক ছাত্রনেতার কোটা চায়।

কথায় আছে সময়ের অদৃষ্ট কাল বিলাই চাটে বাঘের গাল।\”

প্রসঙ্গত, সিদ্দিকী নাজমুল আলম বাংলাদেশের এক সময়ের মাঠ কাপানো ছাত্রলীগ নেতা ছিলেন। বাংলাদেশের ক্ষমতাসীন দল আওয়ামীলীগের ছাত্র সংগঠন বাংলাদেশ ছাত্রলীগের সাবেক সাধারন সম্পাদক হিসেবে দায়িত্ব পালন করেছেন দীর্ঘদিন। তবে তিনি সব

সময়ই আলোচনায় থাকেন তার নানা ধরনের কথা বার্তা নিয়ে। বর্তমানে তিনি বিদেশে অবস্থান করছেন।বিদেশেও অবস্থান করলেও বাংলাদেশের নানা ধরনে সমসাময়িক বিষয় নিয়ে তিনি সব সময় কথা বলে থাকেন।jugantor