‘লাব্বাইক আল্লাহুম্মা লাব্বাইক’ ধ্বনিতে মুখর আরাফার ময়দান

আজ পবিত্র হজ। সৌদি আরবের পবিত্র নগরী মক্কার পাহাড় ঘেরা আরাফার ময়দানে হজ করতে জড়ো হয়েছেন ৬০ হাজার মুসল্লি। তারা বলছেন, লাব্বাইক আল্লাহুম্মা লাব্বাইক। যার অর্থ ‘হে আল্লাহ, আমি হাজির। আমি হাজির। আপনার ডাকে সাড়া দিতে আমি হাজির।’

করোনা মহামারির মধ্যে এটা দ্বিতীয় হজ। তাই সীমিত পরিসরে কড়া স্বাস্থ্যবিধি মেনে পালিত হচ্ছে এবারের হজ। সৌদি আরবের তাবুর নগরী মিনা। রোববার হাজিরা এই তাবুর নগরী মিনায় রাত্রিযাপন করেছেন। মশগুল ছিলেন ইবাদত বন্দেগিতে। কখনো তারা আদায় করেছেন নামাজ।

কখনো পড়েছেন কোরআন শরিফ। কখনো বা মগ্ন ছিলেন জিকির আসগারে। আজ ৯ জিলহজ সোমবার আরাফার দিন, পবিত্র হজের দিন। হাজিরা মিনা থেকে গেছেন আরাফার ময়দানে। ২৩০ ফুট উঁচু পাহাড় ঘেরা আরাফার ময়দান মুখর হয়েছে ‘লাব্বাইক আল্লাহুম্মা লাব্বাইক ধ্বনিতে।’

যার অর্থ, ‘হে আল্লাহ, আমি হাজির। আমি হাজির। আপনার ডাকে সাড়া দিতে আমি হাজির।’ জোহর নামাজের ওয়াক্তে আরাফার ময়দানের মসজিদে নামিরা থেকে এবারের হজের খুতবা দিয়েছেন কাবার ইমাম ও খতিব শায়খ ড. বান্দার বিন আবদুল আজিজ বালিলা।

মোনাজাত করেছেন করোনা মহামারি থেকে মুক্তি ও বিশ্ব শান্তির জন্য। মসজিদে নামিরায় হাজিরা জোহর ও আছরের নামাজও আদায় করেন। হাজিরা রাতে থাকবেন মুজদালিফার খোলা আকাশের নিচে। একসঙ্গে আদায় করবেন মাগরিব ও এশার নামাজ।

সেখানে মহান আল্লাহর কাছে নিজেরা ক্ষমা চাইবেন, ফরিয়াদ জানাবেন বিশ্ব শান্তির জন্য। তবে সূর্যাস্তের আগেই হাজিরা ফিরবেন মিনায়। এরপর ১০ জিলহজ মঙ্গলবার হাজিরা মাথা মুণ্ডন ও পশু কোরবানির মধ্য দিয়ে সম্পন্ন করবেন হজ।