বায়ার্নের গোলউৎসব

অনেক নাটকীয়তার পর গত ২৭ আগস্ট পুরনো ক্লাব ম্যানচেস্টার ইউনাইটেডে যোগ দিয়েছেন ক্রিশ্চিয়ানো রোনালদো। পাঁচবারের বর্ষসেরা খেলোয়াড়কে ছাড়া এম্পোলির বিপক্ষে মাঠে নেমে তুরিনের ক্লাবটি প্রমাণ করল তাদের সামনে অপেক্ষা করছে অনেক কঠিন পথ।

ইতারিয়ান সিরিআতে গত রাতে এম্পোলির মুখোমুখি হয় জুভেন্টাস। আলিয়াঞ্জ স্টেডিয়ামে অনুষ্ঠিত সে ম্যাচে ১-০ ব্যবধানে হেরে গেছে স্বাগতিকরা। এদিকে জার্মান বুন্দেস লিগায় হের্থা বার্লিনকে ৫-০ গোলে উড়িয়ে দিয়েছে বায়ার্ন মিউনিখ।

গত ২২ আগস্ট উদিনেসের বিপক্ষে এগিয়ে থেকেও শেষ পর্যন্ত ২-২ গোলে ড্র করেছিল জুভেন্টাস। নবাগত এম্পোলির বিপক্ষে নিজেদের দাপট দেখাতে পারেনি তারা। ম্যাচের ২১ মিনিটে লিওনার্দো মানকুসোর কল্যাণে এগিয়ে যায় সফরকারীরা। বেশ কয়েকটি সুযোগ তৈরি করলেও শেষ পর্যন্ত ম্যাচে ফেরা হয়নি ইতালিয়ান জায়ান্টদের।

৯ মৌসুম পর পর গত আসরে সিরিআর শিরোপা হাতছাড়া করে জুভেন্টাস। ব্যর্থতার দায়ে চাকরি হারান আন্দ্রে পিরলো। সাবেক ইতালিয়ান তারকা খেলোয়াড়ের স্থলাভিষিক্ত হয়ে দ্বিতীয় দফায় জুভেন্টাসের দায়িত্ব পান ম্যাসিমিলিয়ানো আলেগ্রি। এই কোচের অধীনে প্রথম দুই ম্যাচে এখন পর্যন্ত জয়হীন থাকল তুরিনের ওল্ড লেডিরা।

দুই ম্যাচে এক পয়েন্ট নিয়ে টেবিলের ১৩তম স্থানে আছে জুভেন্টাস। ছয় পয়েন্ট পাওয়া লাজিওর অবস্থান শীর্ষে। সমান পয়েন্ট নিয়ে দুই নম্বরে আছে গতবারের চ্যাম্পিয়ন ইন্টার মিলান।

আপরদিকে নিজেদের মাঠ আলিয়াঞ্জ অ্যারেনায় হের্থাকে পাত্তাই দেয়নি বায়ার্ন। ৬৪ শতাংশ বল নিজেদের দখলে নিয়ে গোলমুখে ১৬টি শট নেয় তারা। এর মধ্যে ৬টি লক্ষ্যে ছিল। হ্যাটট্টিক করেছেন রবার্তো লেভানডফস্কি। একবার করে জালের দেখা পেয়েছেন টমাস মুলার ও জামাল মুসিয়ালা। 

তিন ম্যাচে দুই জয় এবং এক ড্রয়ে বায়ার্নের নামের পাশে আছে সাত পয়েন্ট। টেবিলের দুই নম্বরে অবস্থান করছে জুলিয়ান নাগেলসম্যানের দল। সমান পয়েন্ট নিয়ে শীর্ষে অবস্থান করছে লেভারকুজেন।