ফেসবুক বাংলাদেশে বিলিয়ন ডলার বিনিয়োগ করবে

বাংলাদেশে এখন পর্যন্ত সবচেয়ে জনপ্রিয় সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুক। দেশে বর্তমানে ফেসবুক ব্যবহারকারীর সংখ্যা ৪ কোটি ৮০ লাখের বেশি। কোম্পানিটি এবার বাংলাদেশে বড় ধরনের বিনিয়োগ করতে যাচ্ছে বলে জানা গেছে।

সূত্র বলছে, ফেসবুক বাংলাদেশের ডিজিটাল অবকাঠামো খাতে বিনিয়োগের আগ্রহ প্রকাশ করেছে। সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমটি ১ বিলিয়ন ডলার বিনিয়োগ করবে। বাংলাদেশি টাকায় যার পরিমাণ দাঁড়ায় প্রায় ৮ হাজার কোটি টাকা।

বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন ডাক ও টেলিযোগাযোগ মন্ত্রী মোস্তাফা জব্বার। তিনি বলেন, এটা আসলে আলোচনার একেবারে প্রথম ধাপ। তারা কোন কোন খাতে বিনিয়োগ করতে চায়, সেগুলো নিয়ে পরে আরো বিস্তারিত বলা যাবে।

বিনিয়োগের পরিমাণের বিষয়ে মন্ত্রী বলেন, ১ বিলিয়ন ডলারের মতোই বিনিয়োগের আগ্রহ প্রকাশ করেছে তারা। বিনিয়োগের ক্ষেত্র হিসেবে তারা ডিজিটাল অবকাঠামোর কথা বলেছে। তাদের এই আগ্রহকে আমরা স্বাগত জানাই।

মোস্তাফা জব্বার আরো বলেন, ফেসবুক বিশ্বের বিভিন্ন দেশে এ ধরনের বিনিয়োগ করে থাকে। বাংলাদেশের নাম তাদের আগ্রহের তালিকায় আছে। তার অর্থ হলো- বাংলাদেশকে গুরুত্ব দিয়ে ভাবছে ফেসবুক। এখন তারা বাংলাদেশে ভ্যাট দিচ্ছে। বিনিয়োগ করতে চায়। এটা এ দেশের জন্য অন্যতম একটা দিক।

ডাক ও টেলিযোগাযোগ মন্ত্রী জানান, এক সময় বাংলাদেশকে গুরুত্ব দিতো না ফেসবুক। এমনকি কথাও শুনতে চাইতো না। সামাজিক মাধ্যমটির সঙ্গে সম্পর্কের সেই শিথিলতা দূর হয়েছে। তারা এখন বাংলাদেশকে গুরুত্ব দিচ্ছে। কোনো তথ্য চাইলে তা দিয়ে সরকারকে সহযোগিতা করছে। তার মানে বাংলাদেশের দিক থেকে মুখ ঘুরিয়ে নিচ্ছে না ফেসবুক।

মন্ত্রী আরো বলেন, আওয়ামী লীগ সরকারের লক্ষ্য হলো ডিজিটাল বাংলাদেশ গড়া। তাই ফেসবুক যাতে ডিজিটাল কানেক্টিভিটির ওপর গুরুত্ব দেয় সেটাই বলবে বাংলাদেশ। এ খাতেই বিনিয়োগ চাওয়া হতে পারে। অবশ্য বাংলাদেশ কী ধরনের প্রজেক্ট দিচ্ছে; বিষয়টি পুরোপুরি নির্ভর করছে তার ওপর।