প্রধানমন্ত্রীর কারণেই করোনা মহামারীর সময়ে বাংলাদেশ রক্ষা পেয়েছে : নৌপরিবহন প্রতিমন্ত্রী

নৌপরিবহন প্রতিমন্ত্রী খালিদ মাহমুদ চৌধুরী বলেছেন, প্রধানমন্ত্রীর জীবন ও জীবিকা তত্ত্বের কারণেই করোনা মহামারীর সময়ে বাংলাদেশ রক্ষা পেয়েছে। শুধু বাংলাদেশ নয়; তাবত দুনিয়া দেখেছে, এই মহামারীর সময়ে বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ‘জীবন ও জীবিকার’ তত্ত্ব দিয়েছেন।

প্রতিমন্ত্রী আজ দিনাজপুর জেলা আওয়ামী লীগের আয়োজনে জেলা আইনজীবী সহকারীদের মাঝে নগদ অর্থ প্রদানঅনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে এসব কথা বলেন।
প্রতিমন্ত্রী বলেন, এই জীবন জীবিকা তত্ত্বটি পৃথিবীর কোন সরকারপ্রধান-রাষ্ট্রপ্রধান বলতে পারেন নাই। উল্টো বিদেশে বসে একটি দেশ বিরোধী চক্র বাংলাদেশের চলমান অগ্রযাত্রা থামিয়ে দেয়ার ষড়যন্ত্র করছে।

প্রতিমন্ত্রী বলেন, এখন মানুষ করোনাকে ভয় পায় না; দেশের মানুষকে আজকে এই সাহস যুগিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।তাঁর দূরদর্শিতার কারণে করোনা মহামারীতে বিশ্বের বিভিন্ন দেশের জিডিপি যেখানে মাইনাসে নেমে গেছে। আমরা সেখানে প্লাস আছি। মহামারীর মধ্যেও আমরা ছয় লাখ কোটি টাকার বেশি বাজেট দিয়েছি। আমাদের সাহস ও প্রেরণার উৎস শেখ হাসিনা।

নৌ প্রতিমন্ত্রী আরও বলেন, ষড়যন্ত্র এখনো থেমে যায় নাই। পঁচাত্তরের ১৫ আগস্টের পর জিয়া, এরশাদ, খালেদা জিয়ার হাতধরে ষড়যন্ত্রকারীরা আরো শক্তিশালী হয়েছে। শুধু রাজনৈতিক ভাবেই নয়; অর্থনৈতিক ও সামাজিকভাবে তারা শক্তিশালী হয়েছে। তিনি আরো বলেন, বিদেশে বসে বাংলাদেশের বিরুদ্ধে মিথ্যা তথ্য দিয়ে তারা ষড়যন্ত্র করছে। গত কিছুদিন আগে বৃটিশপার্লামেন্টে মিথ্যা তথ্য দিয়ে তারা বৃটিশ পার্লামেন্টকে বিভ্রান্ত করার চেষ্টা করেছে। এভাবে বাংলাদেশের ইমেজ তারা নষ্ট করার চেষ্টা করছে। আন্তর্জাতিক পরিমন্ডলে মিথ্যা অসত্য সংবাদ পরিবেশন করে বাংলাদেশের ইমেজ ধ্বংস করার চেষ্টা করছে।বাংলাদেশের অগ্রযাত্রা থামিয়ে দেয়ার চেষ্টা করা হচ্ছে। সেই জায়গায় আমাদের ইস্পাত কঠিন ঐক্যবদ্ধ থাকতে হবে।

এ সময় আরো উপস্থিত ছিলেন মনোরঞ্জনশীল গোপাল এমপি, অ্যাড. জাকিয়া তাবাসসুম জুই এমপি, দিনাজপুর জেলার সিনিয়র দায়রা জজ আজিজ আহমেদ ভূঁইয়া, চিফ জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট বি এম তরিকুল কবীর, জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক আজিজুল ইমাম চৌধুরী, জেলা আওয়ামী লীগের ত্রাণ কমিটির আহ্বায়ক আলতাফুজ্জামান মিতা, সদস্যসচিব ফারুকুজ্জামান চৌধুরী মাইকেল, জেলা আইনজীবী সমিতির সভাপতি মাজহারুল ইসলাম সরকার, সাধারণ সম্পাদক সাইফুল ইসলাম, পিপি রবিউল ইসলাম প্রমুখ।

প্রতিমন্ত্রী এর আগে জেলা আওয়ামী লীগ কার্যালয়ে দলের অস্বচ্ছল নেতা-কর্মীদের মাঝে নগদ অর্থ বিতরণ করেন।