গোপালগঞ্জ: ৫ পরিবারের চলার পথ বন্ধ করে দিলেন জমির মালিক

গোপালগঞ্জের কাশিয়ানীতে ইটের দেয়াল দিয়ে ঘিরে চলাচলের পথ বন্ধ করে পাঁচ পরিবারকে অবরুদ্ধ করে রেখেছেন এক ব্যক্তি।

উপজেলার নিজামকান্দি ইউনিয়নের ফসলী গ্রামের লাড্ডু শেখ এই দেয়াল দিয়েছেন।

বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকমকে তিনি বলেন, “গত ৩২ বছর ধরে আমরা তাদের আমাদের জায়গা দিয়ে চলাচল করতে দিয়েছি। এক সপ্তাহ আগে আমাদের সঙ্গে তাদের ঝগড়াবিবাদ হয়। তাই আমরা চলাচলের পথ বন্ধ করে দিয়েছি।”

চলাচলের বিকল্প পথ না থাকায় পরিবারগুলোর সদস্যরা বাড়ি থেকে বের হতে পারছেন না। নৌকায় আধা কিলোমিটার পথ ঘুরে তারা হাটে-বাজারে ও চিকিৎসার জন্য যাচ্ছেন।

অবরুদ্ধ পরিবারের সদস্য লালটু সরদার (৪৮) নামে একজন সদস্য বলেন, “আমরা এখানে বাড়ি করার পর বিনা বাধায় ৩২ বছর রাস্তাটি ব্যবহার করছি। সাত দিন আগে লাড্ডু শেখসহ স্থানীয়রা আধিপত্য বিস্তার ও ক্ষমতার অপব্যবহার করে আমাদের চলাচলের একমাত্র রাস্তাটি ইটের দেয়াল দিয়ে বন্ধ করে দিয়েছেন।

“এতে আমাদের পাঁচ পরিবারের প্রায় ৪০ জন সদস্য অবরুদ্ধ হয়ে পড়েছেন। তাদের মধ্যে ছয়জন শিক্ষার্থী, একজন অন্তঃসত্ত্বা এবং একাধিক বয়োজ্যেষ্ঠ ব্যক্তি রয়েছেন। শিক্ষার্থীরা দীর্ঘদিন পর বিদ্যালয় খুললেও যেতে পারছে না। এ অবস্থা থেকে মুক্তি পেতে আমরা জেলা প্রশাসকের কাছে লিখিত অভিযোগ দিয়েছি।”

অবরুদ্ধ পাঁচ পরিবারে পক্ষ থেকে ৮ সেপ্টেম্বর প্রশাসনের কাছে লিখিত অভিযোগ করা হয়েছে।

কাশিয়ানীর ইউএনও রথীন্দ্রনাথ রায় বলেন, “বিষয়টি স্থানীয় চেয়ারম্যানকে মীমাংসার জন্য বলেছি। তারা ব্যর্থ হলে আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।”

নিজামকান্দি ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান জুয়েল খান বলেন, “বিষয়টি নিয়ে এলাকার গণ্যমান্য ব্যক্তিরা বসেছিলেন। কিন্তু তারা সমাধান করতে পারেননি। তবে আমরা দ্রুত সমাধান করব।”